কার্ডিয়াক সার্জন [ ক্যারিয়ার ক্যাটালগ ]

কার্ডিয়াক সার্জন [ ক্যারিয়ার ক্যাটালগ ] একজন কার্ডিয়াক সার্জন হলেন একজন চিকিত্সক যিনি হার্ট এবং তার চারপাশের প্রধান রক্তনালীগুলির অস্ত্রোপচারের জন্য উন্নত শিক্ষা এবং প্রশিক্ষণ নিয়েছেন। তারা বিভিন্ন বিশেষত্বের অন্তর্গত হতে পারে বা নির্দিষ্ট ধরণের হৃদযন্ত্রের প্রক্রিয়াগুলিতে বিশেষজ্ঞ হতে বেছে নিতে পারে, যেমন শিশুদের উপর করা পদ্ধতি।অন্যান্য সকল সমস্যার মত হৃদরোগের সমস্যাও বাংলাদেশে বেশ জটিল হিসেবেই ধরা হয়। রোগ নির্ণয়ের কথা হিসাবে নিলে বাংলাদেশের প্রেক্ষাপটে একজন কার্ডিওলজিস্টের প্রয়োজনীয়তা বেশ গুরুত্বপূর্ণ হলেও সব ধরনের সমস্যার সমাধান একজন কার্ডিওলজিস্ট দিতে পারেন না।

 

কার্ডিয়াক সার্জন [ ক্যারিয়ার ক্যাটালগ ] - Medical Gurukul Logo

 

একটি কার্ডিয়াক সার্জন কি?

একজন কার্ডিয়াক-সার্জন হলেন একজন চিকিত্সক যিনি হার্ট এবং তার চারপাশের প্রধান রক্তনালীগুলির অস্ত্রোপচার করেন। কার্ডিয়াক-সার্জন এর অধীনে বেশ কয়েকটি ভিন্ন চিকিৎসা বিশেষত্ব রয়েছে, যার মধ্যে কিছু ফোকাসের ক্ষেত্র ওভারল্যাপিং রয়েছে।

কার্ডিয়াক সার্জারি কি?

কার্ডিয়াক সার্জারি হল আপনার হৃদপিণ্ডে বা হৃদপিণ্ডের সাথে সংযোগ স্থাপনের কাছাকাছি যে কোনো রক্তনালীতে সঞ্চালিত যেকোনো ধরনের অস্ত্রোপচার। কিছু ক্ষেত্রে, এই সার্জারিগুলি হৃদয়ের পাশের টিস্যু বা গঠনগুলিকে অন্তর্ভুক্ত করতে পারে।

একজন কার্ডিয়াক সার্জন কোথায় কাজ করেন?

সরকারি পর্যায়ে ৫০ শয্যাবিশিষ্ট উপজেলা হেলথ কমপ্লেক্স থেকে শুরু করে টারশিয়ারি পর্যায়ের হাসপাতাল পর্যন্ত সব ধরনের হাসপাতালেই একজন কার্ডিয়াক-সার্জন কাজ করতে পারেন। সরকারি এবং বেসরকারি – দুই ধরনের হাসপাতাল বা প্রতিষ্ঠানেই কার্ডিয়াক-সার্জন নিযুক্ত থাকেন।

একজন কার্ডিয়াক সার্জন কী ধরনের কাজ করেন?

হৃদযন্ত্রে ও এর আশেপাশে সমস্যা এবং ব্যথা থাকলে সমস্যা ও ব্যথার কারণ নির্ণয় করে দেন কার্ডিওলজিস্ট।
সমস্যার সমাধান হিসেবে সার্জারি করার প্রয়োজন হলে আপনাকে একজন কার্ডিয়াক সার্জনের শরণাপন্ন হতে হবে।
সেক্ষেত্রে একজন কার্ডিয়াক-সার্জন হৃদযন্ত্রের সার্জারি বা অপারেশন সম্পন্ন করে থাকেন।

জন্মগত হৃদরোগের চিকিৎসা কার্ডিয়াক-সার্জন দিয়ে থাকেন। জন্মগত রোগের ক্ষেত্রে যেহেতু একজন ব্যক্তি হৃদযন্ত্রে ফুটো বা ফাটল অথবা হৃদযন্ত্রের ভালভ নষ্ট নিয়ে জন্ম নিয়ে থাকেন সেক্ষেত্রে একজন কার্ডিওলজিস্টের পক্ষে এই সমস্যার সমাধান দেওয়া সম্ভব নয় যেহেতু ওষুধ বা স্টেন্টিং-এর মাধ্যমে এই ব্যাপারে প্রতিকার পাওয়ার কোন উপায় নেই।
এক্ষেত্রে আপনাকে হৃদযন্ত্রের ভেতর শল্যচিকিৎসার মাধ্যমে প্রয়োজনীয় অঙ্গ বা অংশ প্রতিস্থাপন ছাড়া প্রতিকার পাওয়া যাবে না।

একজন কার্ডিয়াক সার্জনের কী ধরনের যোগ্যতা থাকতে হয়?

শুধুমাত্র এমবিবিএস ডিগ্রিপ্রাপ্ত হলেই কার্ডিয়াক সার্জন হওয়া যায় না। বরং কার্ডিয়াক সার্জারি বিষয়ের উপর বিশেষায়িত ডিগ্রি থাকলেই কেবলমাত্র আপনি কার্ডিয়াক-সার্জন হিসেবে কাজ করতে পারবেন।

এক্ষেত্রে কার্ডিয়াক সার্জারি বিষয়ে এমএস, এফসিপিএস, এমসিপিএস অথবা ডিপ্লোমা ডিগ্রি থাকলে আপনি কার্ডিয়াক সার্জন হিসেবে নিয়োগ পেতে পারেন।

একজন কার্ডিয়াক সার্জনের কী ধরনের দক্ষতা ও জ্ঞান থাকতে হয়?

নিয়োগের পরবর্তী জীবনে ক্যারিয়ার উন্নয়নের জন্য অভিজ্ঞতা চিকিৎসাশাস্ত্রে খুব গুরুত্বপূর্ণ একটি বিষয়। এক্ষেত্রে যত বেশি সম্ভব সরাসরি অভিজ্ঞতা ও জ্ঞান আহরণ করা জরুরি।

কনজেনিটাল ও স্ট্রাকচারাল (জন্মগত ও কাঠামোগত) হৃদরোগ নিয়ে পরিষ্কার ধারণা থাকতে হবে।

নিয়োগের পরবর্তী জীবনে ক্যারিয়ার উন্নয়নের জন্য অভিজ্ঞতা চিকিৎসাশাস্ত্রে খুব গুরুত্বপূর্ণ একটি বিষয়। এক্ষেত্রে যত বেশি সম্ভব সরাসরি অভিজ্ঞতা ও জ্ঞান আহরণ করা জরুরি।

কনজেনিটাল ও স্ট্রাকচারাল (জন্মগত ও কাঠামোগত) হৃদরোগ নিয়ে পরিষ্কার ধারণা থাকতে হবে।

ইকো, ইসিজি, অ্যাঞ্জিওগ্রাম, লিপিড টেস্ট প্রভৃতি পরীক্ষা-নিরীক্ষা নিয়ে ভালোমত জানতে হবে এবং রিপোর্ট বোঝার মত যথাযথ জ্ঞান থাকতে হয়।

সার্জারির কাজ বেশ স্পর্শকাতর এবং ঝুঁকিপূর্ণ বিধায় খুব দক্ষ ও পারদর্শী না হলে সাধারণত কেউ অপারেশনের কাজের দিকে আগ্রহী হন না। সেক্ষেত্রে অনেক বেশি দক্ষতা না থাকলে সার্জারি সম্পন্ন করার ঝুঁকি নেওয়া উচিত নয়।

 

 

কোথায় পড়বেন কার্ডিয়াক সার্জারি?

এমবিবিএস ডিগ্রি লাভের পরে বাংলাদেশে বিসিপিএস (বাংলাদেশ কলেজ অব ফিজিশিয়ানস অ্যান্ড সার্জনস) থেকে কার্ডিয়াক সার্জারি বিষয়ের উপর এফসিপিএস ডিগ্রি লাভ করা সম্ভব।

এছাড়া কয়েকটি সরকারি মেডিকেল কলেজে ও বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় থেকে কার্ডিয়াক সার্জারি বিষয়ের উপর এই গ্র্যাজুয়েশন পরবর্তী ডিগ্রিগুলো, যেমন – ডিপ্লোমা, এমএস প্রভৃতি দেওয়া হয়ে থাকে।

একজন কার্ডিয়াক সার্জনের মাসিক আয় কেমন?

আপনি যদি একজন কার্ডিয়াক সার্জন হন সেক্ষেত্রে বেসরকারি খাতে মাসিক সম্মানীর পরিমাণ বাংলাদেশে বেশ ভালো।
বেসরকারি ক্ষেত্রে শুরুর দিকে আপনার মাসিক সম্মানী শুরু হবে দেড় লাখ টাকা থেকে। সময় ও অভিজ্ঞতার সাথে আপনার মাসিক আয় বেড়ে দুই লাখ টাকা কিংবা তার অধিকও হতে পারে।
তবে বিষয়টি কাজ ও প্রতিষ্ঠানসাপেক্ষ।

 

একজন কার্ডিয়াক সার্জনের ক্যারিয়ার কেমন হতে পারে?

যে কোন হাসপাতালের ক্ষেত্রে একজন কার্ডিয়াক সার্জনের ক্যারিয়ারের পদবিন্যাস সাধারণত নিম্নলিখিত পদগুলো অনুযায়ী পর্যায়ক্রমে এগোয় –

১। জুনিয়র কনসালট্যান্ট
২। সিনিয়র কনসালট্যান্ট

এক্ষেত্রে নিয়োগের পরে আপনার প্রথম পদ হবে জুনিয়র কনসালট্যান্ট। সাধারণত অল্প অভিজ্ঞতা আছে এবং অন্তত একটি ব্যাচেলর পরবর্তী ডিগ্রি আছে এমন ব্যক্তিদেরকে জুনিয়র কনসালট্যান্ট হিসেবে নিয়োগ দেওয়া হয়।

আরও পড়ুন:

1 thought on “কার্ডিয়াক সার্জন [ ক্যারিয়ার ক্যাটালগ ]”

Leave a Comment